শনিবার   ২৮ নভেম্বর ২০২০ ||  অগ্রাহায়ণ ১৩ ১৪২৭ ||  ১২ রবিউস সানি ১৪৪২

ACI Agri Business

কোস্ট ট্রাস্টের বিষমুক্ত শুটকি সরবরাহ করবে ফিঙে

নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ২২:৪৫, ১৭ নভেম্বর ২০২০

প্রাকৃতিক ও নিরাপদ খাদ্যসামগ্রী সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠান ফিঙে এখন থেকে নিজেদের অনলাই মার্কেটপ্লেস ফিঙেশপ ডট কম ও আউটলেটের মাধ্যমে সারাদেশে কোস্ট ট্রাস্টের অত্যাধুনিক ফিস ড্রায়ারে উৎপাদিত বিষমুক্ত এবং নিরাপদ শুটকি পাইকারী ও খুচরা সরবরাহ করতে পারবে। বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা কোস্ট ট্রাস্টের প্রশিক্ষিত কর্মী ও উদ্যোক্তাদের মাধ্যমে উৎপাদিত শুটকির একমাত্র পরিবেশক হিসেবে সংস্থাটির সঙ্গে সমঝোতা চুক্তি সই করেছে ফিঙে।

মঙ্গলবার (১৬ নভেম্বর) কোস্ট ট্রাস্টের রাজধানীর শ্যামলীর প্রধান কার্যালয়ে এ চুক্তি স্বাক্ষর হয়। ফিঙের পক্ষে প্রতিষ্ঠানের সিইও রহমত উল্যাহ চৌধুরী এবং কোস্ট ট্রাস্টের পক্ষে সংস্থার উপপরিচালক (এন্টারপ্রাইস ডেভেলপমেন্ট) বারেকুল ইসলাম চৌধুরী স্বাক্ষর করেন।

এ সময় তারা বলেন, এ চুক্তির ফলে শুটকি উৎপাদনকারীদের মাঝে বিষমুক্ত শুটকি উৎপাদনে উৎসাহ বাড়বে, কমবে কিটনাশকের ব্যবহার। আর এতে পরিবেশ সংরক্ষণের পাশাপাশি সবচেয়ে বেশি উপকৃত হবে ভোক্তারা।

চুক্তি অনুযায়ী এখন থেকে কোস্ট ট্রাস্ট নিজেদের প্রশিক্ষিত কর্মী ও উদ্যোক্তাদের মাধ্যমে কোনো ধরনের কিটনাশকের ব্যবহার ছাড়া অত্যাধুনিক ফিস ড্রায়ারে শুটকি উৎপাদন করবে এবং তাদের উৎপাদিত শুটকি যথাযথ মান নিয়ন্ত্রণ করে বাজারজাত করবে ফিঙে।

উৎপাদনকারী শুটকি উৎপাদনকালে কোনোধরনের কিটনাশকের ব্যবহার করে থাকলে ফিঙে আইনি ব্যবস্থা নিতে পারবে। কোস্ট ট্রাস্টের উদ্যোক্তাদের উৎপাদিত বিষমুক্ত শুটকির নামে সাধারণ শুটকি সরবারাহ করলে ফিঙের বিরুদ্ধেও আইনি ব্যবস্থা নিতে পারবে কোস্ট ট্রাস্ট। 

বাংলাদেশ সরকারের পল্লী কর্মসহায়ক ফাউন্ডেশনের ভ্যালু চেইন প্রকল্পের আওতায় দীর্ঘদিন ধরে বিষমুক্ত শুটকি উৎপাদনে উদ্যোক্তা তৈরি ও অত্যাধুনিক পদ্ধতিতে ফিস ড্রায়ারে বিষমুক্ত শুটকি উৎপাদন করে আসছে উন্নয়ন সংস্থা কোস্ট ট্রাস্ট। এ পদ্ধতিতে কিটনাশকের বিপরীতে শুটকিতে মরিচ ও হলুদের গুঁড়ো ব্যবহার করা হয়। এছাড়া, নিরাপদ ও স্বাস্থ্যসম্মত রাখতে এ শুটকি খোলা পরিবেশের বিপরিতে নতুন উদ্ভাবিত প্রযুক্তির অত্যাধুনিক ফিশ ড্রায়ারে শুকোনো হয়।

চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মাঝে কোস্ট ট্রাস্টের পরিচালক (কেয়ার প্রোগ্রাম) তারিক সাঈদ হারুন, পরিবেশ সাংবাদিক কেফায়েত শাকিলসহ দুই প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। 

Advertisement
Advertisement